বাজারে যখন অনেকগুলি অডিও পণ্যের সমাহার, সেক্ষেত্রে প্রতিযোগিতা দিনকে দিন তীব্র থেকে তীব্র হচ্ছে। কোম্পানিগুলি বাজারের চাপকে মাথায় রেখে নিজেরাই টিকে থাকার জন্য সেরা পণ্যগুলি তৈরি করার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।আপনি কোন পণ্যটি ক্রয় করবেন, আপনার বাজেট অনুযায়ী কোনটি নিলে আপনার প্রয়োজন এর সাথে সামঞ্জস্য সেটি নিয়ে চিন্তা ভাবনা করতে হবে।কারণ আপনার কাছে অপশন বেশি তাই ভাবনার জায়গাটি ও অনেক বেড়ে যাচ্ছে।

প্রত্যেক কোম্পানির যোগ্য বা চমৎকার অডিও ইঞ্জিনিয়ার বা প্রোডাক্ট ডিজাইনার বা ভালো মার্কেটিং টিম নেই।কিন্তু প্রত্যেক কোম্পানি চাই কাংখিত মুনাফা অর্জন করতে।তবে যেসকল কোম্পানি ভোক্তার চাহিদাকে প্রাধান্য দিয়ে দামের সাথে মানের গুনগত মান বজায় রেখে পণ্য উৎপাদন করে থাকে তারাই দিন শেষে টিকে থাকে।তাই কোন ধরনের অডিও পণ্য বেছে নিতে আপনাকে কিছু গবেষণা করতে হবে।

FiiTii HiFiPods

দীর্ঘদিন ব্যবহারের অভিজ্ঞতা থেকে বলতে পারি FiiTii HifiPods নিসন্দেহে সেরা একটি ইয়ারবাড।আপনার পছন্দের তালিকায় বিবেচনায় রাখতে পারেন এই ইয়ারবাডকে।আপনাদের মনে প্রশ্ন জাগতে পারে কেন এটিকে আপনাদের বিবেচনায় রাখার জন্য বার বার বলছি?চলুন তাহলে এই এর সেরা দিক গুলো জেনে নেয়া যাক:

আমরা প্রথমে এটির ডিজাইন সম্পর্কে আপনাদেরকে একটা ধারণা দেওয়ার চেষ্টা করব।কথায় আছে আগে দর্শনধারী পরে গুণবিচারী।দর্শন এর দিক অর্থাৎ ডিজাইন থেকে শুরু করে, বৃত্তাকার ধাতব-নির্মিত ইয়ারফোন কেস, খোলা এবং বন্ধ করার জন্য একটি সন্তোষজনক ক্লিকার রয়েছে।নান্দনিকতা বাড়ানোর জন্য রুপালি রেখার প্রান্তগুলোকে পালিশ করা হয়েছে যার ফলে এর সৌন্দর্য অনেকাংশে বেড়ে গিয়েছে।আর কেসটি বহনের ক্ষেত্রে ও সুবিধা রয়েছে যেকোনো সাধারণ পকেটেই খুব সহজে ফিট হয়ে যায়।ধূসর রঙের ইয়ারফোনগুলি ভিতরে চুম্বকীয়ভাবে স্থাপন করা হয়েছে।চকচকে ফিনিশ প্লাস্টিকের ব্যবহার করা ফলে এর ওজন অনেকটা হালকা যার প্রতিটির ওজন মাত্র 5.5 গ্রাম এবং চার্জিং কেস 85 গ্রাম।ইয়ারফোনে নকশাটি খুবই সূক্ষ্ম এবং এর শরীরের কিছু অংশ জুড়ে বক্র আকৃতির নকশা আছে।আর এটি ব্যবহার এর ক্ষেত্রে খুবই আরামদায়ক।যেহেতু এটা ওজনে হালকা এবং দৃঢ় হয়ে থাকে বার বার কান থেকে পড়ে যাওয়ার ভয় থাকে নাহ সেহেতু যারা এটা ব্যবহার করে তাদের ব্যবহার অভিজ্ঞতা দুর্দান্ত।

ফিচার

এটিতে সমস্ত দরকারী বৈশিষ্ট্য গুলো রয়েছে।প্রথমত, শব্দ-বাতিলকরণ,এটি 6টি মাইক্রোফোন দিয়ে সজ্জিত যা বেশিরভাগ ফ্রিকোয়েন্সি বাছাই করতে পারে এবং কার্যকরভাবে অনেকাংশে কমাতে পারে, যা সর্বাধিক 40db পর্যন্ত হয়।এটি বাতাসের শব্দকে হ্রাস করতে সক্ষম তাই আপনাকে বাইক চালানোর সময় এটি ব্যবহার করার বিষয়ে চিন্তা করতে হবে না।অন্তর্নির্মিত অ্যালগরিদমের সাহায্যে, এটি ফোন কল করার সময় আশেপাশের আওয়াজও কমিয়ে দেয়, এমনকি খুব কোলাহলপূর্ণ পরিবেশেও ভয়েসকে আরও স্পষ্ট করে তোলে।


কানেক্টিভিটি

এটি ব্লুটুথ 5.2 ব্যবহার করা হয়েছে এবং এর মধ্যে সংযোগের জন্য SBC, AAC, এবং APT-X কোডেক্স ও স্থাপন করা হয়েছে। SBC এবং AAC বেশ সাধারণ কিন্তু APT-X সাধারণত সাধারণ ইয়ারফোনের সাথে থাকে না এবং বলা হয় যে এটি শব্দের গুণমানকে অনেকাংশে উন্নত করে।ব্লুটুথ সংযোগ খুব স্থির,তাই জনাকীর্ণ জায়গায় সাবওয়ে স্টেশন কাজ করে নিখুঁত এবং ধারাবাহিকভাবে এর পরিসীমা 10m পর্যন্ত ও হয়৷

ব্যাটারি

আপনার পণ্য প্রতিযোগিতায় স্বতন্ত্র ভাবে অন্যদের থেকে এগিয়ে থাকতে পারবে যেটার মাধ্যমে তা হলো ব্যাটারি। FiiTii HifiPods ব্যবহৃত হয়েছে 1000mAh ব্যাটারির এবং কেসটি একসাথে 70 ঘন্টা ব্যাটারি লাইফ সাপোর্ট দেয়। ইয়ারবাডগুলি নিজেই 7 ঘন্টা এবং চার্জিং কেস 63 ঘন্টা সাপোর্ট প্রদান করে।আপনি যদি এমন কেউ হন যিনি সবসময় সময়মতো ইয়ারফোন চার্জ করতে ভুলে যান তবে এটি আপনার জন্য হতে পারে কার্যকর ইয়ারফোন৷রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে একবার চার্জ করলেই এটি প্রায় এক সাপ্তাহ পর্যন্ত আপনাকে সাপোর্ট দিবে।এটিতে IPX7 রেট দেওয়া হয়েছে, যার মানে হল আপনি ইয়ারফোন সহ 1 মিটার আধা ঘন্টার জন্য পানির নীচে থাকলে ও এটা স্বাভাবিক ভাবে কাজ করবে।তবে রেটিং শুধুমাত্র ইয়ারবাড অন্তর্ভুক্ত, চার্জিং কেসের কোনো আইপি রেটিং নেই।

সাউণ্ড
এখন সাউন্ড কোয়ালিটি নিয়ে কথা বলা যাক, ইয়ারফোন দুটি ভিন্ন ড্রাইভারের দ্বারা গঠিত।একটি হলো সুষম আর্মেচার ড্রাইভার এবং অন্যটি ডায়নামিক ড্রাইভার।ডায়নামিক ড্রাইভার এবং টু-ব্যালেন্সড-আর্মেচার সংস্করণের ফলে অন্য গুলোর তুলনায় অনেক ভালো সাউন্ড কোয়ালিটি পাওয়া যাচ্ছে।

যদিও ও পণ্যটির দাম একটু বেশি বলে মনে হতে পারে তবে এর সমস্ত মূল বৈশিষ্ট্যগুলি, যেমন ব্যাটারি লাইফ, বিল্ট কোয়ালিটি এবং আরাম, সবই বাজারের অন্যান্য অনেক পণ্যের চেয়ে বেশি।সাউন্ড কোয়ালিটিও খুব আনন্দদায়ক এবং সুন্দর।আপনার বাজেট যদি এর আশে পাশে থাকে তাহলে এই সমস্ত কারণগুলি একত্রিত কর এই ইয়ারবাড বিবেচনায় রাখতে পারেন।

Amazon Price

Share This Story, Choose Your Platform!

  • Continue reading
  • Continue reading
  • Continue reading
  • Continue reading
  • Continue reading

Leave A Comment